রংপুরে ৮০ হাজার টাকা নিয়েও যুবককে পিটিয়ে হত্যা করল পুলিশ!

আলোকিত প্রতিবেদক : রংপুরের মাহিগঞ্জে নূরুন্নবী (৩৫) নামে এক যুবককে পুলিশ পিটিয়ে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

এ ঘটনায় এলাকাবাসী দুই এসআইয়ের গ্রেফতার দাবিতে বিক্ষোভ করেছেন।

শনিবার ভোর পাঁচটার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত নূরুন্নবী বালাটারী এলাকার ডা. এছাহাক মিয়ার ছেলে।

নিহতের পরিবার অভিযোগ করেন, পুলিশ নূরুন্নবীকে আটক করে পিটিয়ে হত্যা করেছে।

তবে পুলিশ হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে নূরুন্নবী মারা গেছেন বলে দাবি করছে।

নূরুন্নবীর স্বজনরা জানান, কোতোয়ালী থানার এসআই তারেক ও তোফাজ্জল শুক্রবার দিবাগত রাতে নূরুন্নবীর বাসায় গিয়ে প্রথমে তার ছোট ভাই গোলজারকে আটক করে হাতকড়া পরায়। পরে পুলিশ তার কাছে এক লাখ ২০ হাজার টাকা দাবি করে। টাকা দিতে অস্বীকার করায় তাকে মারধর করা হয়। এক পর্যায়ে তাদেরকে ৮০ হাজার টাকা দেওয়া হয়।

গোলজার অভিযোগ করেন, টাকা নেওয়ার পর পুলিশ তার বড় ভাই নূরুন্নবীকে আটক করে হাতকড়া পরিয়ে বেদম মারপিট করে। এক পর্যায়ে নূরুন্নবী জ্ঞান হারিয়ে মাটিয়ে লুটিয়ে পড়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান।

এ ঘটনায় তিন সদস্যবিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান।

আরও খবর

Contact Us