শ্রীপুরে রাস্তা পেল রাজাকার পরিবার : বঞ্চিত মুক্তিযোদ্ধা

শাহাদাত হোসেন সাদেক, শ্রীপুর : গাজীপুরের শ্রীপুরের বরমী ইউনিয়নের ডালেশহর গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা আবদুল বারেক (৭০) ৩০০ ফুট কাঁচা রাস্তার কাদা মাড়িয়ে বাড়িতে চলাচল করেন।

এলাকার মৃত নওয়াব আলীর বাড়ি ছাড়া আশপাশের সকল বাড়ি মুক্তিযুদ্ধের সময় পাক হানাদার বাহিনী পুড়িয়ে দিয়েছিল।

সেই রাজাকার নওয়াব আলীর বাড়ির রাস্তাই সরকারি অর্থে ইট বিছিয়ে তৈরি করে দেওয়া হয়েছে।

এ ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করে স্থানীয় সামসুদ্দীন (৬৫) বলেন, মুক্তিযুদ্ধের বিরোধিতা করে রাজাকার পরিবার স্বাধীনতার স্বাদ ভোগ করতে অগ্রাধিকার পায়। এ দৃশ্য আমাদের হৃদয় বিদীর্ণ করে।

মো. আলম বলেন, ওই মুক্তিযোদ্ধা আমাদের সামনে দিয়ে দিনের পর দিন কাদা মাড়িয়ে চলাচল করছেন। অথচ প্রতিবেশী রাজাকারের বাড়িতে ইট-বালুর রাস্তা হয়। বছরের পর বছর আবেদন করেও তিনি চলাচলের স্বাভাবিক রাস্তাটুকু পাননি।

ভুক্তভোগী মুক্তিযোদ্ধা বলেন, ইউনিয়ন পরিষদ নানা জনের বাড়ির রাস্তা করে। গত ১০ বছর ঘুরেও রাস্তা পাইনি। একবার চেয়ারম্যান ৪ নং ওয়ার্ড মেম্বার হারুন অর রশীদকে দায়িত্ব দেন। পরে তিনি নকশা করে মাটি ফেলেন। বৃষ্টি হলেই রাস্তাটি কাদায় ভরে যায়।

এ ব্যাপারে ইউপি চেয়ারম্যান বাদল সরকার বলেন, ওয়ার্ড মেম্বার বিষয়টি ভালভাবে ব্যাখ্যা করতে পারবেন।

জানতে চাইলে মেম্বার হারুন অর রশীদ বলেন, নওয়াব আলীর বাড়ির রাস্তাটি পল্লী উন্নয়ন বোর্ডের প্রকল্পে করা হয়েছে। মুক্তিযোদ্ধার বাড়ির রাস্তাটি করার প্রক্রিয়া চলছে।

আরও খবর