শ্রীপুরে ‘নির্দেশনা অমান্য’ করে এনজিওর কিস্তি আদায়!

আতাউর রহমান সোহেল, শ্রীপুর : মহামারি করোনার অর্থনৈতিক প্রভাব মোকাবেলায় সরকার এনজিও প্রতিষ্ঠানগুলোকে কিস্তি স্থগিতের নির্দেশনা দিলেও কর্মীরা বাড়ি বাড়ি গিয়ে কিস্তি আদায় করছেন।

গাজীপুরের শ্রীপুরে জাগরণী চক্র, সেবা, সামাজিক সেবা, এসএস, ব্যুরো বাংলাদেশ, আশা ও সেতুসহ কিছু এনজিও ওপরের নির্দেশের কথা বলে তৎপর রয়েছে।

তেলিহাটি ইউনিয়নের দেওচালা গ্রামের কফিল উদ্দিনের স্ত্রী আলোকিত নিউজকে জানান, তিনি ছয় মাস আগে এসএস ও সেবা থেকে ঋণ নিয়েছেন। তার স্বামী অসুস্থ থাকায় চাপে আছেন।

গত ২ জুন টাকা ধার করে কিস্তি দিতে বাধ্য হয়েছেন। ৮ জুন সকালে মাঠকর্মী আবারও কিস্তি নিতে তাদের বাড়িতে আসেন।

একই গ্রামের দুলাল মিয়া বলেন, সামাজিক সেবার মাঠকর্মী কিস্তি নিতে বারবার বাড়িতে আসছেন। অথচ জুন পর্যন্ত কিস্তি না নেওয়ার সংবাদ পত্রিকায় পড়েছিলাম।

টেপিরবাড়ীর আলমগীর হোসেন জানান, এক সপ্তাহ আগেই মাঠকর্মী বাড়ি বাড়ি গিয়ে কিস্তি দিতে বলেছেন। এই আর্থিক সংকটের সময়ে জুলুম মেনে নেওয়া যায় না।

জাগরণী চক্রের মাওনা চৌরাস্তা শাখার ম্যানেজার ললিদা আলোকিত নিউজকে বলেন, যারা দিচ্ছে, তাদের কাছ থেকে কিস্তি নিচ্ছি। আমাদের প্রায় ৭০ ভাগ আদায় হয়ে গেছে।

সামাজিক সেবার মাওনা শাখার ম্যানেজার এম এ মালেক আলোকিত নিউজকে বলেন, ফিল্ড অফিসার আনোয়ার গত সপ্তাহে দেওচালা কেন্দ্রে গিয়েছিলেন। অনেকেই কিস্তি দেয়নি। এ সপ্তাহে দিবে বলেছে।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ শামছুল আরেফীন আলোকিত নিউজকে বলেন, আমরা এনজিওদের বলে দিয়েছি, পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত কিস্তি আদায় করবে না। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করব।

image_printপ্রিন্ট করুন
Share
  • 292
    Shares
আরও খবর