কাপাসিয়ায় স্বামীর আগুনে রোজিনার মৃত্যু : ঘটনা ধামাচাপার পাঁয়তারা

নিজস্ব প্রতিবেদক : কাপাসিয়ায় স্বামীর আগুনে দগ্ধ রোজিনা (২০) মারা গেছেন।

এক সপ্তাহ আগে তার গায়ে পেট্রোল ঢেলে আগুন ধরিয়ে দিয়েছিলেন স্বামী।

অবশেষে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ে মৃত্যুর কাছে হার মানলেন তিনি।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, উপজেলার সূর্যনারায়ণপুরের কাওলার টেকের দরিদ্র আবুল সরদারের মেয়ে রোজিনাকে প্রায় এক বছর আগে বিয়ে করেন নলগাঁও খয়রাপাড়া গ্রামের নজরুল ইসলামের ছেলে টমটম চালক সোহাগ।

বিয়ের কিছুদিন পর থেকে তাদের মধ্যে পারিবারিক কলহ শুরু হয়।

এক সপ্তাহ আগে সোহাগ পেট্রোল-জাতীয় পদার্থ ঢেলে রোজিনার গায়ে আগুন ধরিয়ে দেন।

আগুনে রোজিনার শরীরের বেশির ভাগ অংশ পুড়ে যায়।

ওই সময় সোহাগও দগ্ধ হন।

পরে তাদেরকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেলের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়।

স্থানীয় ইউপি মেম্বার নজরুল ইসলাম প্রধান আলোকিত নিউজ ডটকমকে জানান, শুক্রবার রাতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রোজিনা মারা যান। শনিবার সন্ধ্যায় তার লাশ বাবার বাড়িতে দাফন করা হয়।

এ ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

এদিকে রোজিনা হত্যার ঘটনায় থানায় এখনো মামলা হয়নি।

বিষয়টি ধামাচাপা দেওয়ার পাঁয়তারা চলছে বলে জানা গেছে।

আরও খবর

Contact Us