‘গ্রেফতারের আগে জনগণের কথা চিন্তা করে পালিয়ে যাননি বঙ্গবন্ধু’

আলোকিত প্রতিবেদক : ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ রাতে ঢাকা সেনানিবাস থেকে পাকিস্তান সেনাদের গাড়িবহর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে গ্রেফতার করতে রওনা হয়।

তখন বঙ্গবন্ধুর এক শুভাকাঙ্ক্ষী তাকে ফোন করে পালিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন।

জবাবে বঙ্গবন্ধু বলেন, জনগণের জীবন ঝুঁকিতে ফেলে তিনি পালাবেন না।

তার ধারণা ছিল, পাকিস্তানি সেনারা তাকে না পেলে পুরো ঢাকা শহরে জ্বালাও-পোড়াও করবে।

বিদেশি সাংবাদিক সাইমন ড্রিং বিষয়টি ‘দ্য টেলিগ্রাফ’ পত্রিকায় এক নিবন্ধে তুলে ধরেছেন।

এতে বলা হয়, পাকিস্তানি সেনারা প্রথমে বঙ্গবন্ধুর বাড়ি ঘেরাও করে। বঙ্গবন্ধু হামলার আশঙ্কায় কাজের লোক ও দেহরক্ষী ছাড়া সবাইকে বাড়ি থেকে সরিয়ে রাখেন।

একজন পাকিস্তানি সেনা কর্মকর্তা বঙ্গবন্ধুকে নিচে নামতে বললে তিনি বেলকুনিতে দাঁড়িয়ে বলেন, আমি প্রস্তুত। গুলি ছোড়ার প্রয়োজন নেই। তোমরা আমাকে ফোনে বলতে পারতে। আমি নিচে নেমে আসতাম।

এরপর ওই কর্মকর্তা বাড়ির বাগানে হেঁটে গিয়ে বঙ্গবন্ধুকে বলেন, ইউ আর অ্যারেস্ট।

পরে বঙ্গবন্ধুকে সেনা সদরে নিয়ে যাওয়া হয়। একজন সেনা বাড়িতে প্রবেশ করে সবকিছু তছনছ করেন। বাংলাদেশ পতাকাটি নামিয়ে ছুড়ে ফেলে দেন।

সূত্র : বাসস।

আরও খবর

Contact Us